ট্রাম্পের জন্য তালেবানদের দরজা খোলা

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প যদি ভবিষ্যতে শান্তি আলোচনা আবার শুরু করতে চান তবে তার জন্য তালেবানদের দরজা খোলা। বিবিসিকে দেওয়া এক বিশেষ সাক্ষাৎকারে প্রধান মধ্যস্থতাকারী ও তালেবান শীর্ষ নেতা শের মোহাম্মদ আব্বাস স্টানিকজাই এ কথা বলেন। তিনি জোর দিয়ে বলেন, আলোচনাই এখন ‘আফগানিস্তানে শান্তির একমাত্র উপায়’।

আজ বুধবার বিবিসি অনলাইনের এক প্রতিবেদনে এসব তথ্য জানানো হয়।

তালেবানদের সঙ্গে শান্তি আলোচনা এখন একটা ‘মৃত ইস্যু’—গত সপ্তাহে ট্রাম্প এমন মন্তব্য করেন। তবে তালেবান শের মোহাম্মদ আব্বাস স্টানিকজাইর বক্তব্য থেকে এটা পরিষ্কার যে, আলোচনা চালিয়ে যেতে তাঁরা আগ্রহী।

এর আগে চলতি মাসের শুরুতে ১৮-বছরের সংঘাতের অবসান ঘটাতে উভয় পক্ষ একটি চুক্তির দ্বারপ্রান্তে পৌঁছেছিল। এমনকি জ্যেষ্ঠ তালেবান নেতা ও আফগান প্রেসিডেন্ট আশরাফ ঘানিকে গত ৮ সেপ্টেম্বর মার্কিন প্রেসিডেন্টের অবকাশনিবাস হিসেবে পরিচিত ক্যাম্প ডেভিডে বৈঠকে আমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন ট্রাম্প। তবে গত ৬ সেপ্টেম্বর আফগানিস্তানের রাজধানী কাবুলের কঠোর নিরাপত্তাবেষ্টিত কূটনৈতিক এলাকা শাশ দারকে গাড়িবোমা হামলায় এক মার্কিন সেনাসহ ১২ জন নিহত হন। ন্যাটোর নেতৃত্বাধীন মিশনের এক রুমানিয়ার সেনাও নিহত হন। ওই ঘটনার দায় স্বীকার করে তালেবানেরা। ওই ঘটনার পর ডোনাল্ড ট্রাম্প বৈঠক বাতিল করে দেন।

গতকাল মঙ্গলবারের মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও সাম্প্রতিক তালেবান হামলার নিন্দা জানিয়ে এক বিবৃতিতে বলেন, অবশ্যই তাদের শান্তির প্রতি সত্যিকারের প্রতিশ্রুতি প্রদর্শন করতে হবে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *