এবার বিশ্বকাপ কার-ইংল্যান্ড না নিউজিল্যান্ডের?

বিশ্বকাপের দ্বিতীয় সেমিফাইনালে অস্ট্রেলিয়াকে ৮ উইকেটে হারিয়ে ফাইনালে ইংল্যান্ড। এদিন অস্ট্রেলিয়ার ২২৪ রানের টার্গেটে ব্যাট করতে নেমে মাত্র ৩২.১ ওভারে সহজেই ৮ উইকেটের জয় পায় মরগানের দল।

আর এর মাধ্যমে ২৭ বছরের ইতিহাস ভেঙে ফাইনালে বৃটিশরা। ছয় সেমিফাইনালে কেউ অসিদের টপকে ফাইনালের মুখ দেখেনি। ক্রিকেটে এক গৌরবময় অধ্যায়। সেই অস্ট্রেলিয়াকে হারিয়ে ফাইনালের মুখ দেখল মরগানের দল। শুধু তাই নয়, ১৯৯২ সালে সর্বশেষ পাকিস্তানের বিপক্ষে ফাইনাল খেলার পর আর ২৭ বছরে বিশ্বকাপের কোনো আসরে ফাইনাল খেলতে পারেনি ইংল্যান্ড।

এখন ফাইনালে ইংল্যান্ডের প্রতিপক্ষ ভারতকে হারানো নিউজিল্যান্ড। ইংল্যান্ড বনাম নিউজিল্যান্ড লড়াই ঘিরে আগ্রহ তুঙ্গে। একদিকে ঘরের মাঠে বিশ্বকাপে পাখির চোখ ইংল্যান্ডের। অন্যদিকে নিউজিল্যান্ডের সামনে আরও একটা ফাইনালে পৌঁছে খেতাব ঘরে তোলার হাতছানি। যদিও দু’দলের কেউই এখনো বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন হতে পারেনি। আগামী ১৪ তারিখে ইংল্যান্ড-নিউজিল্যান্ডের ম্যাচের মাধ্যমে নতুন চ্যাম্পিয়ন দেখবে গোটা বিশ্ব।
বৃহস্পতিবার টস জিতে ব্যাট করে ইংলিশ বোলারদের দুর্দান্ত বোলিংয়ের সামনে ১ ওভার আগেই শেষ হয়ে যায় অসিদের ইনিংস। ইংলিশদের জন্য লক্ষ্যমাত্রা ২২৪ রান। এই রান করতে খুব বেশি বেগ পেতে হয়নি তাদের। মাত্র ৩২.১ ওভারে সহজেই জয় পেয়ে যায় মরগানের দল।

জেসন রয় সর্বোচ্চ ৮৫ রান সংগ্রহ করেন। এছাড়া ২২৩ রান টপকাতে দলীয় অধিনায়ক জো রুটের ৪৯, মরগানের ৪৫ ও বেয়ারস্টোর ৩৪ রানের ইনিংসগুলোও ছিল নজরকাড়া। অসিদের সাদামাটা বোলিংয়ে ইংলিশদের মাত্র দুটি উইকেটের পতন হয়। একটি রয় ও অন্যটি বেয়ারস্টোর।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *